শিরোনাম
চন্দ্রগঞ্জ হাইওয়ে পুলিশ পরিদর্শক ওসি’র উদ্যোগে যানজট মুক্ত চৌমুহনী চৌরাস্তা পিকেএসএফ-এর সহকারী মহাব্যবস্থাপক কর্তৃক দাবী মৌলিক উন্নয়ন সংস্থায় আরএমটিপি’র উপ-প্রকল্প কার্যক্রম পরিদর্শন। আন্তর্জাতিক দাতা সংস্থা অভয়নগরে মা’র লাশ বাসায় রেখে এসএসসি পরীক্ষা দিল ছেলে বগুড়ার কৃতি সন্তান রামপুরা থানার সাব ইন্সপেক্টর মুমিনুর রহমানকে অভিনন্দন ও শুভেচ্ছা জানান। বগুড়া গরিব দুঃখীদের মাঝে শীতবস্ত্র বিতরণ। দাবী’ নওগাঁয় পিকেএসএফ প্রতিনিধির উপস্থিতিতে তরুণ উদ্যোক্তাদের অর্থায়ন ও প্রশিক্ষণ বিষয়ক অগ্রগতি আলোচনা সভা।  পিকেএসএফ ও বিশ্বব্যাংক প্রতিনিধি দলের দাবী মৌলিক উন্নয়ন সংস্থায় রেইজ প্রকল্প পরিদর্শন রাজশাহী বাঘার গৌরাঙ্গপুর নতুন বছরের প্রথম দিনে কোমলমতি শিক্ষার্থীরা পেল নতুন বই!  যারা শেখ হাসিনার দেয়া নৌকাকে অস্বীকার করছে, তারা বিশ্বাসঘাতক-মীরজাফর- বাদশা জয়পুরহাটের পাঁচবিবিতে নতুন বছরে নতুন বই বিতরণ উৎসব অনুষ্ঠিত। 
মঙ্গলবার, ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১২:২১ অপরাহ্ন

৫০ দিনের ইনসাফ যাত্রা শেষে, রানুছায়া মঞ্চে, ডি ওয়াই এফ আই একটি সভা করলেন।

শম্পা দাস ও সমরেশ রায়, কলকাতা / ২৪ বার এই সংবাদটি পড়া হয়েছে
প্রকাশের সময় : রবিবার, ৩১ ডিসেম্বর, ২০২৩

আজ ৩০শে ডিসেম্বর শনিবার ঠিক সন্ধে পাঁচটায় রানুছায়া মঞ্চে ডি ওয়াই এফ আই এর পরিচালনায়, ৭ই জানুয়ারী ব্রিগেড সমাবেশকে কেন্দ্র করে, একটি সুন্দর অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে সাধারণ মানুষকে বার্তা দেওয়ার চেষ্টা করলেন অন্যায়ের বিরুদ্ধে। বক্তৃতা, গান, কবিতা ও নাটকের মধ্য দিয়ে তুলে ধরলেন মানুষের দুর্দশার কথা, পশ্চিমবাংলায় কি ঘটছে, সাধারণ মানুষ ন্যায্য অধিকার থেকে কিভাবে বঞ্চিত, সমস্ত কিছু টাকার বিনিময়ে বিক্রি হয়ে যাচ্ছে , সারাদেশে গুন্ডামী, চুরি , ছিন্তায়, মস্তানি বেড়ে চলেছে, এদিকে খেটে খাওয়া মানুষের দিন আনতে পান্তা ফোড়ায় ,কাজ পেয়েও কাজ হারাচ্ছে, চাকরী পেয়েও চাকরী হারাচ্ছে, খেটে পয়সা পাচ্ছে না। তারই প্রতিবাদে ৭ই জানুয়ারী সকলকে পাশে থাকার আহ্বান। অন্যায়ের বিরুদ্ধে সঙ্ঘবদ্ধভাবে লড়াই করার, আমাদের আজকের আহ্বান, ইনসাফ , সঠিক বিচার চাই, তাই নতুন বছরে নতুন সকাল আনার ব্রিগেড সমর্থনে যৌবনের ডাক এবং হয়ে উঠবে জনগণের ব্রিগেড। আজ মঞ্চে উপস্থিত ছিলেন ডি ওয়াই এফের কলকাতা জেলা সভাপতি বিকাশ ঝা, উপস্থিত ছিলেন সোহম মুখার্জী, পৌলবী মজুমদার, সৌরভ পাল, ওয়াদী হোসেন, সংগীতে ছিলেন স্বর্ণালী,। ও কবি ও সঙ্গীতশিল্পী কাজী কমল নাসের সহ আরো অন্যান্য বহু শিল্পী ,কবি এবং যারা 50 দিন ধরে ইনসাফ যাত্রায় অংশ নিয়েছিলেন তাহাদের কয়েক জন । ডি ওয়াই এফের কর্মীরা বলেন, আমরা ইনসাফের পক্ষে, আজ পর্যন্ত আমাদের কেউ টলাতে পারেনি, আমরা আন্দোলন করতে গিয়ে আমাদের বহু নেতাকে হারিয়েছি, মইদুল ইসলাম থেকে শুরু করে সুদীপ্ত গুপ্তকে পর্যন্ত, তবুও আমরা ন্যায্য দাবী আদায়ের জন্য আজও একই ভাবে এগিয়ে চলেছি, আমরা ৫০ দিনের ইনসাফ যাত্রা শুরু করেছিলাম, সুদূর কুচবিহার থেকে আলিপুরদুয়ার, আলিপুরদুয়ার থেকে জলপাইগুড়ি, জলপাইগুড়ি থেকে বীরভূম, বীরভূম থেকে মালদা, আমাদের ইনসাফ যাত্রায় বহু বাধা দেয়ার চেষ্টা করেও আমরা সফল হয়েছি এবং ফিরে এসে আজকের আমাদের সভা, আমরা ইনসাফ যাত্রা করতে গিয়ে বহু মানুষের ভালোবাসা পেয়েছি ,খেটে খাওয়া মানুষের আর্তনাদ শুনেছি এবং কিভাবে তাদের কাজ করানো হচ্ছে, কাজ করিয়েও তারা তাদের ন্যায্য মজুরি পাচ্ছেন না, আমরা তাদের পাশে থাকার চেষ্টা করেছি, শুধু তাই নয় যেভাবে শিক্ষা ক্ষেত্রেও দুর্নীতিতে ভরিয়ে ফেলেছে ,সাধারণ ঘরের মানুষ তার ছেলে মেয়েদের শিক্ষিত করেও চাকরি পাচ্ছে না, দিনের পর দিন চাকরির দাবীতে ধর্মতলায় বসে আর্তনাদ করছে, আমরা তাদের পাশে রয়েছি। সঠিক বিচার ন্যায্য অধিকার পাওয়ার দাবী নিয়ে। এদিকে কেন্দ্রীয় সরকার ও রাজ্য সরকার চুপ করে বসে আছেন, বিভিন্ন জায়গায় পথ খালি পড়ে আছে আর সেগুলি দিনের পর দিন টাকার বিনিময়ে অযোগ্য মানুষদেরকে চাকরী দেওয়া হচ্ছে, শিক্ষিত ছেলেমেয়েরা পথে বসে, তেমনি কর্পোরেশনে একইভাবে দুর্নীতি চলেছে, ৩৫ হাজার পদ খালি থেকেও, একটি ভালো ছেলে মেয়ে চাকরি হচ্ছে না, আমরা সব কিছু সঠিক ইনসাফ চাই।


এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ